কুমিল্লায় হাত-মুখ বাঁধা, মাথা থেতলানো তরুণীর লা শ উদ্ধার

নেকব হোসেন।।
কুমিল্লা আদর্শ সদর উপজেলার কালিরবাজার ইউনিয়নের মস্তফাপুর এলাকায় ফারজানা (২৮) নামে এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার (২৪ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ৯ টায় ইউনিয়নের লালমাই পাহাড়ের পাদদেশের একটি ধানের জমি থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। পুলিশের ধারনা রাতেই লাশটি এখানে ফেলে রাখা হয়েছে।

ফারজানার চাচা হাফিজুল ইসলাম জানান, ফারজানা কুমিল্লা আদর্শ সদরের কালিরবাজার ইউনিয়নের এর আলেখারচর এলাকার জাহাঙ্গীর আলমের মেয়ে। সে পাশের অলিপুর এলাকার অটোচালক ইকবালের স্ত্রী। ৩ দিন আগে মাদক নিরাময় কেন্দ্র থেকে এসে গতকাল বিকেলে স্ত্রীকে তার বাবার বাড়ি আলেখারচর থেকে নিজের বাড়িতে নিয়ে আসে ইকবাল। পরে স্বামী রবিবার সকাল ৯টায় ফরজানার বাড়িতে থাকা তার বাড়ির লোকদের ফোন করে জানায় ফারজানাকে কে বা কারা হত্যা করে ধান ক্ষেতে ফেলে রেখেছে।এরপর স্থানীয়দের সাহায্যে ঘটনাস্থলে সবাই আসে।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, মাদকসেবন করে আমার ভাতিজিকে ইকবাল প্রায়শই মারধর করতো। ওইদিন ভালোয় ভালোয় নিয়ে এসেছিল। এরপর আমি ভাতিজিকে মেরে পালিয়েছে।

লাশটি উদ্ধার করে কুমিল্লা কোতোয়ালি থানা পুলিশের ক্যান্টনমেন্ট নাজিরা বাজার ফাঁড়ির পুলিশ। নাজিরা বাজার পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. মহিউল ইসলাম বলেন, লাশের মাথায় বড় বড় আঘাতের চিহ্ন। তার হাত ওড়না দিয়ে বাঁধা, আর মুখ গামছা দিয়ে বাঁধা। এটা নিশ্চিত হত্যাকাণ্ড। লাশের সুরতহাল প্রতিবেদন করে ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠাচ্ছি। ঘটনার পর থেকে তার স্বামী ও শশুর বাড়ির লোকজন পলাতক।

     আরো দেখুন:

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১  

You cannot copy content of this page