কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪০৬ শিক্ষার্থী পেলো ভাইস চ্যান্সেলর স্কালারশিপ

কুবি প্রতিনিধি।।
দ্বিতীয়বারের মত ভাইস চ্যান্সেলর স্কলারশিপ প্রদান করেছে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় (কুবি) প্রশাসন। এবার ১৯টি বিভাগের ৪০৬ জন শিক্ষার্থীকে এই বৃত্তি দেয়া হয়েছে।

সোমবার (১৮ ডিসেম্বর) সকাল ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের মুক্তমঞ্চে অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড. মুহ. আমিনুল ইসলাম আকন্দের সভাপতিত্বে এবং ব্যবস্থাপনা শিক্ষা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. জাহিদ হাসান ও ইংরেজি বিভাগের প্রভাষক কাজী ফাখেরা নওশীনের সঞ্চালনায় বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের চেক প্রদান করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এএফএম আবদুল মঈন।

স্নাতক ও স্নাতকোত্তরের মেধাবী ও অসচ্ছল ৩৭২জন শিক্ষার্থী, স্পোর্টস স্কলারশিপ ক্যাটাগরিতে ১৯ জন শিক্ষার্থী সহ মোট ৩৯১জন শিক্ষার্থীর প্রত্যেককে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব তহবিল থেকে ৮ হাজার ৫০০টাকা সমমূল্যের চেক প্রদান করা হয়। এছাড়া কম্পিউটার সাইন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অর্থায়নে নিজ বিভাগের ১৫ জন শিক্ষার্থীকে অর্থাৎ এসএসএম মেমোরিয়াল ফান্ড থেকে ৩ জন এবং উত্তর ক‍্যারোলিনা ,ইউএসএ ভিত্তিক স্কলারশিপ প্রোগ্রাম-শোপান থেকে ১২ জন শিক্ষার্থীকে প্রতি মাসে ৫ হাজার টাকা করে দেয়া হবে।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপাচার্য অধ্যাপক ড. এ এফ এম আবদুল মঈন বলেন, ‘আজকের এই দিনটিকে আমাদের সবার জন্য বিশেষ করে তুলেছে বৃত্তিপ্রাপ্তরা। ভর্তি পরিক্ষার আয় থেকে ৮০% তহবিল সেট করে আমরা এই প্রোগ্রামটি শুরু করেছি। সম্ভবত আমরাই প্রথম পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়, যারা ভর্তি পরীক্ষার আয় থেকে তহবিল গঠন করে শিক্ষার্থীদের মেধাকে স্বীকৃতি দিয়েছে। গতবছর যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলাম তার সাথে সঙ্গতিপূর্ণ স্পোর্টস স্কলারশিপ চালু করতে পেরে আমরা আনন্দিত। বৃত্তির এই প্রোগ্রামটি শুধু এই বছর নয়, বছরের পর বছর চালু থাকবে বলে আশা করছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা ডিপ লার্নিং, অথেনটিক লার্নিং, এক্সপেরিমেন্টাল লার্নিং, এবং ক্রিটিকাল থিংকিংয়ের বিকাশকে সমর্থন করি। আমরা পাঠ‍্যপুস্তুক ও ক্লাসরুমের বাইরে আজীবন শেখার আবেগকে জাগিয়ে তুলতে কাজ করে যাচ্ছি। যা আমাদের শিক্ষার্থীদের এমন একটি বিশ্বের জন্য প্রস্তুত করতে যাচ্ছে যেখানে তারা অভিযোজনযোগ্যতা, উদ্ভাবন এবং নৈতিক নেতৃত্বের দাবি রাখে।’

অনুষ্ঠানের সভাপতির বক্তব্যে অধ্যাপক ড. মুহ. আমিনুল ইসলাম আকন্দ বলেন, ‘আমরা এই স্কলারশিপের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের শিক্ষাক্ষেত্রে উৎসাহিত করার পাশাপাশি ফিন্যান্সিয়াল সাপোর্ট প্রদান করছি। এছাড়া স্পোর্টস স্কলারশিপ শিক্ষার্থীদের খেলাধুলায় উৎসাহিত করবে। এই স্কলারশিপ প্রদানের উদ্যোগ নেওয়ার জন্য আমি উপাচার্য স্যারেকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’

এছাড়া এ অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন ইউজিসি গ্রান্ট কমিশনের সদস্য অধ্যাপক ড. মো. আবু তাহের। এছাড়া বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক মো. আসাদুজ্জামান, সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন এন এম রবিউল আওয়াল চৌধুরী, বিএনসিসি ময়নামতি রেজিমেন্টের রেজিমেন্ট কমান্ডার লেফটেন্যান্ট কলনেল মো. কামরুল ইসলাম এবং কুমিল্লার ডেপুটি কমিশনার মো. মুশফিকুর রহমান।

এর আগে ২০২২ সালের ২৬ মে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথমবারের মতো ৫৮ জন অসচ্ছল ও মেধাবী শিক্ষার্থীকে এককালীন বৃত্তি প্রদান করা হয়েছিল। এরপর একই বছরের ১৬ নভেম্বর প্রথমবারের মত মেধাবী ও অস্বচ্ছল শিক্ষার্থীদের ভাইস চ্যান্সেলর স্কলারশিপ নামে বৃত্তি প্রদান করা হয়।

     আরো দেখুন:

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০  

You cannot copy content of this page