দলীয় সিদ্ধান্ত নয়, শুভাকাঙ্ক্ষীদের পরামর্শেই লড়াইয়ের মাঠে থাকছেন সাক্কু

কুমিল্লা প্রতিনিধি
কুমিল্লা সিটি করপোরেশন (কুসিক) নির্বাচনে বিএনপির অংশগ্রহণের ঘোষণা না পেয়ে মেয়র পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী হওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন দলটির দুই নেতা। এ জন্য তাঁরা জেলা নির্বাচন কার্যালয় থেকে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন। এই দুই নেতা হলেন কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান সিটি মেয়র মনিরুল হক সাক্কু এবং মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি নিজাম উদ্দিন কায়সার। স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র কেনার বিষয়টি জেলা নির্বাচন কার্যালয় সূত্র নিশ্চিত করেছে।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি নিজাম উদ্দিন কায়সার বলেন, ‘বিএনপি নামধারী কিছু আওয়ামী লীগ নেতা আছে। তাদের বলে জাতীয়তাবাদী আওয়ামী লীগ। তাদের নির্যাতনে দলের নেতা–কর্মীরা অতিষ্ঠ। নির্যাতিত নেতা-কর্মীদের চাপের মুখে আমি প্রার্থী হয়েছি।’

স্বতন্ত্র হিসেবে মনোনয়নপত্র কেনার ব্যাপারে জানতে চাইলে জেলা বিএনপির যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মনিরুল হক সাক্কু বলেন, ‘দল নির্বাচন করবে না। কিন্তু আমার দলের নেতা-কর্মী ও শুভাকাঙ্ক্ষীদের অনুরোধে মনোনয়নপত্র কিনেছি।’ তিনি আরও বলেন, ‘নগরবাসীকে দীর্ঘ ১৩ বছর সেবা দিয়েছি। নেতা–কর্মীসহ আমার অনেক ভক্ত সমর্থক রয়েছে। তাদের সঙ্গে আলোচনা করে মনোনয়নপত্র জমা দেব।’

কুসিক নির্বাচনে দলের অবস্থান জানতে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আমিন উর রশিদ ইয়াছিনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। মোবাইল ফোনে তিনি বলেন, ‘স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে দলের কে মনোনয়নপত্র কিনেছেন সে বিষয়টি আমার জানা নেই। কুমিল্লা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপি অংশ নেবে না। দলের সিদ্ধান্তের বাইরে কেউ নির্বাচনে গেলে দলের নীতিনির্ধারকেরা ব্যবস্থা নেবেন।’

২০১১ সালের ৬ জুলাই কুমিল্লা পৌরসভা ও সদর দক্ষিণ পৌরসভার মোট ২৭টি ওয়ার্ড নিয়ে সিটি করপোরেশন গঠিত হয়। ২০১২ সালের ৫ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত প্রথম নির্বাচনে বিএনপি থেকে পদত্যাগ করে নাগরিক কমিটির ব্যানারে নৌকার প্রার্থী অধ্যক্ষ আফজল খানকে হারিয়ে প্রথম মেয়র নির্বাচিত হন কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক মো. মনিরুল হক সাক্কু। পরে ২০১৭ সালের ৩০ মার্চ বিএনপির মনোনয়নে সাক্কু নৌকার প্রার্থী আঞ্জুম সুলতানা সীমাকে হারিয়ে দ্বিতীয় বারের মতো কুসিকের মেয়র নির্বাচিত হন।

এদিকে কুমিল্লা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে অংশ নিতে জেলা নির্বাচন কার্যালয় থেকে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করছেন তিন পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আগ্রহী প্রার্থীরা। এ তিন পদে গত মঙ্গলবার পর্যন্ত মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন ১৪৬ জন।

কুসিক নির্বাচনের সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা কামরুল হাসান জানান, গতকাল মঙ্গলবার পর্যন্ত মেয়র পদে তিনজন, ২৭টি সাধারণ ওয়ার্ডে সাধারণ আসনের সদস্য পদে ১১৮ জন, ৯টি সংরক্ষিত ওয়ার্ডের নারী আসনের সদস্য পদে ২৫ জন মনোনয়নপত্র নিয়েছেন। গতকাল মনোনয়নপত্র জমা দেন সাধারণ সদস্য পদের একজন।

মেয়র পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনিরুল হক সাক্কু ও নিজাম উদ্দিন কায়সার এবং ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মো. রাশেদুল ইসলাম মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন।

রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন ১৭ মে। প্রত্যাহারের শেষ সময় ২৬ মে। ১৯ মে জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই এবং ২৭ মে একই স্থানে প্রতীক বরাদ্দ করা হবে। ভোট গ্রহণ করা হবে ১৫ জুন।

সূত্র- দৈনিক আজকের পত্রিকা।।

     আরো দেখুন:

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১  

You cannot copy content of this page