১০ টা মার্ডার করা লাগলে করে আসবেন! কুমিল্লায় আ.লীগ প্রার্থীর ছেলের বক্তব্য ভাইরাল

মাহফুজ নান্টু, কুমিল্লা।
এটা আমার নির্দেশ ‘মার খেয়ে আসা যাবে না, মার দিয়ে আসতে হবে, তার জন্য যদি দশটা মার্ডারও করা লাগে তাই করে আসবেন। আমি বাকিটা দেখব ইনশাল্লাহ।

কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলার ১৩নং জোয়াগ ইউনিয়নে আ.লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থীর ছেলে মিজানুর রহমান খানের এমন একটি বক্তব্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৩০ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় জোয়াগ ইউনিয়নের পাঁচপুকুরিয়া গ্রামের এক উঠান বৈঠকে এমন বক্তব্য দেন তিনি। পরে রাত ১০ টার পর ফেসবুকে ভাইরাল হয়ে যায়।

ভাইরাল ভিডিওতে মিজানুর রহমান খান আরও বলেন, ঘোষণা দিয়ে যাচ্ছি, যদি আমার লোকদের এক ফোঁটা রক্ত ঝড়ে, আপনি দশ ফোঁটা রক্ত নিয়ে আসবেন, বাকিটা আমি দেখবো ইনশাল্লাহ। ছাড় দেওয়া যাবে না, এক চুল পরিমাণও ছাড় দিব না। মিজান কী জিনিস এখনও জোয়াগের অনেক লোক জানে না। জানা উচিত, যখন নমিনেশন নিয়ে আসছি তখন থেকেই জানা উচিত।’

এসময় তার পিতা আওয়ামীলীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সহ-সভাপতি ইঞ্জি. আব্দুল আউয়ালও ওই মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন।

ইঞ্জি. আব্দুল আউয়াল বলেন, আমাকে সামাজিক ভাবে হেয়পতিপন্ন করার জন্য একটি পক্ষ ভিডিওটি ছড়িয়েছে। আপনার ছেলে মার্ডার করার নির্দেশ কেন দিল? এমন প্রশ্নের জবাবে উত্তর না দিয়ে তিনি এড়িয়ে যান।

আরেক প্রশ্নে জবাবে তিনি বলেন, আমার প্রতিপক্ষ নিয়মিত হুমকী দিয়ে আসছে। আমার জন্য দোয়া করবেন।

বিষয়টি নিয়ে কুমিল্লা আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ দুলাল তালুকদার বলেন, বিষয়টি আমাদের নজরে এসেছে। তদন্ত করে প্রয়োজনী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

     আরো দেখুন:

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০  

You cannot copy content of this page