কুমিল্লায় প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার পেয়ে আনন্দে কাঁদলো প্রতিবন্ধীরা

মাহফুজ নান্টু, কুমিল্লা।।

রাত পোহালেই পবিত্র ঈদ উল আযহা। সবাই যখন ঈদ উদযাপনের প্রস্তুতি নিয়ে ব্যস্ত সে সময়ে দেড় শতাধিক প্রতিবন্ধীদের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার নিয়ে হাজির হয়েছেন কুমিল্লা জেলা প্রশাসক।

চাল, ডাল, তেল, লবন, চিনি, সেমাই, মশলাদি পেয়ে আনন্দে আটখানা প্রতিবন্ধিরা। ঈদ উপহার পেয়ে হাত তুলে দোয়া করেছেন প্রধানমন্ত্রীর জন্য। কেউ কেউ আনন্দে কেঁদেছেন।

মঙ্গলবার বেলা ৪ টার দিকে নগরীর একটি কমিউনিটি সেন্টারে ১৬২ জন প্রতিবন্ধী আসেন৷ কারো হাত নেই, কারো পা নেই, কেউ বোবা, তো কেউ অন্ধ। আবার কারো হাত পা কিছুই নেই। হামাগুড়ি দিয়ে এসেছেন প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার নিতে।

চাল ডাল সেমাই চিনি দুধসহ প্রায় ১১ কেজী ওজনের ঈদ উপহার পেয়ে কেঁদে ফেলেন সোবহান মিয়া। একপায়ে ভর দিয়ে দু হাত তুলেন। আল্লা তুমি প্রধানমন্ত্রীরে হাজার বছর বাছাইয়া রাইখ্খো।

ঈদ উপহার পেয়ে জন্মান্ধ আফরোজা বেগম বলে উঠলেন, প্রধানমন্ত্রী আমার লাইগ্গা উপহার পাডাইছে। এইডা আমি ভুলতাম না। আল্লায় পধানমন্ত্রীরে বালা মসিবত থাইক্কা বাচাইয়া রাহুক।

ঈদ উপহার পেয়ে আনন্দে কেঁদেছে ১৬২ জন প্রতিবন্ধী। এখন তাদের ঈদ উদযাপনে কোন চিন্তা নেই।

প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার বিতরণ শেষে কুমিল্লা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ কামরুল হাসান বলেন, করোনার অতিমারিতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর উপহার সমাজের সব অসহায় নিম্ন আয়ের মানুষের মাঝে পৌঁছে দিচ্ছি। যারা মুখ ফুটে বলতে পারছে না তাদের জন্যও ব্যবস্থা রেখেছি। মোবাইলে বা এসএমএসে যোগাযোগ করলে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দেয়া হচ্ছে। আজ ১৬২ জন প্রতিবন্ধীর মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ করেছি।

ঈদ উপহার বিতরণকালে আরও উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলাপ্রশাসক (সার্বিক) মোহাম্মদ শাহাদাত হোসেন, সহকারী কমিশনার (গোপনীয়) জনাব অতীশ সরকার, জেলা প্রতিবন্ধী কল্যাণ সমিতির সভাপতি প্রমুখ ব্যক্তিবর্গ।

উল্লেখ্য, গত ১৪ জুলাই জেলাপ্রশাসন, কুমিল্লা – এর পক্ষে ১১০ জন প্রতিবন্ধীর হাতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর উপহারসামগ্রী তুলে দেওয়া হয়।

     আরো দেখুন:

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০৩১