ব্রাহ্মণবাড়িয়া সংঘর্ষে আহত ২০, বাজারে অগ্নিসংযোগ, ১০ দাঙ্গাবাজ আটক

ব্রাহ্মণবাড়িয়া:
পূর্ব বিরোধের জের ধরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ উপজেলায় দু’পক্ষের সংঘর্ষে অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন।

বুধবার (১৮ জানুয়ারি) সকাল থেকে দফায় দফায় উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের দুর্গাপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এসময় আগুনে জ্বালিয়ে দেওয়া হয়েছে স্থানীয় বাজারের অন্তত ১০টি দোকান।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত শুক্র ও শনিবার সিএনজি চালিত অটোরিকশার ধাক্কা লাগা নিয়ে দুর্গাপুর গ্রামের জারুর গোষ্ঠী (ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান রাসেল গোষ্ঠী) এবং বারঘরিয়া (মিজান মেম্বারের গোষ্ঠী) গোষ্ঠীর লোকজনের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষ হয়। এরই জের ধরে চেয়ারম্যান ও মেম্বারের লোকজন বুধবার সকালে আবার সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। সংঘর্ষে উভয়পক্ষের অন্তত ২০ জন আহত হন। এর মধ্যে মেম্বারের গোষ্ঠীর বাহার মিয়া নামে একজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকায় পাঠানো হচ্ছে। এসময় স্থানীয় বাজারের ১০টি দোকানে অগ্নিসংযোগ করা হয়। পরে দমকল বাহিনীর সদস্যরা এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

আশুগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার মিজানুর রহমান বলেন, অগ্নিকাণ্ডের খবরে আমরা সেখানে গিয়ে আগুন নিভিয়েছি। আমাদের সঙ্গে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা শহরের দমকল বাহিনীও অংশ নেয়। কিন্তু ততক্ষণে মুদি, ফার্মেসিসহ ১০টি দোকান সম্পূর্ণ পুড়ে গেছে।

আশুগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজাদ রহমান জানান, সংঘর্ষের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়। এছাড়া পুলিশ লাইন থেকে অতিরিক্ত আরও ৩৫ জন পুলিশ পাঠানো হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। এ ঘটনায় ১০ জন দাঙ্গাবাজকে আটক করা হয়েছে।

     আরো দেখুন:

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮  

You cannot copy content of this page